বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
54 জন দেখেছেন
"ধর্ম ও আধ্যাত্মিক বিশ্বাস" বিভাগে করেছেন (1 পয়েন্ট )
আমি একটা কবুতর বিক্রি করি,দোকানে।দোকানদার নিশ্চয় কারো না কারো কাছে বিক্রি করেছিল,এখন কবুতর আমার কাছে ফিরে এসেছে।ভেবেছি আমি বিক্রি করে ছদকা করে দিব।একজন কিনবে বলেছিল,এখন সে না কিনে আর একজন এর দালালি করছে,,তার কাছে বিক্রি করা যাবে কি???আর যদি তার কাছে না বিক্রি করি,তাহলে বলতে হবে বিক্রি করবো না,যা মিত্থা হয়ে যায়,কারণ আমি বিক্রি করবো।।এখন কি করা উচিত। তাড়াতাড়ি উত্তর পেলে উপকৃত হতাম।
করেছেন (1,849 পয়েন্ট)
আপনি বর্তমানে কবুতরটি নিজে পোষেন, আপনি এটাকে লালন পালন করেন এবং এটার মালিক খোঁজতে থাকুন। ইসলামের নিয়ম হল কোনো কিছু পেলে তার মালিক একবছর খোজঁ তে হয়। আমি মনেকরি যদি আপনি কিছুদিন পরেও আসল মালিক খোঁজে না পান তাহলে আপনি এটাকে বিক্রি করে গরিব মানুষদের কে এই কবুতরটি বিক্রি করে টাকা দিয়ে দিয়েন সদকা হিসাবে। আশাকরি আল্লাহ আপনাকে উত্তম রিজিক দান করবেন।

1 উত্তর

0 টি পছন্দ
করেছেন (1,633 পয়েন্ট)
আপনি প্রথমত যে দোকানে ব্রিক্রি করেছিলেন সেই দোকানে খবর নিন উনি যার কাছে ব্রিক্রি করেছিলেন উনি দোকানে এসে এর খবর নিয়েছেন কি না।হারিয়ে যাওয়া জিনিস পেলে শরীয়ত মোতাবেক প্রথম কাজ হলো আপনি এর প্রকৃত মালিক কে তালাস করা এবং মালিকের কাছে তা পৌছে দেওয়া।আর যদি মালিক না পান তাহলে আপনি তা যে কোন অসহায়,গরীবকে বা সদকা করতে পারবেন।তবে মিথ্যার আশ্রয় নিয়ে বেচাকেনা লেনদেন কিছুই করা ঠিক নয়।আপনি যাই করবেন তা সততার উপর থেকেই করবেন।
টি উত্তর

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
2 টি উত্তর
24 ফেব্রুয়ারি "শিক্ষা+শিক্ষা প্রতিষ্ঠান" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন MD ENAMUL HAQUE (39 পয়েন্ট)

294,646 টি প্রশ্ন

381,345 টি উত্তর

115,300 টি মন্তব্য

161,882 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...