বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
94 জন দেখেছেন
"ধর্ম ও আধ্যাত্মিক বিশ্বাস" বিভাগে করেছেন (4,428 পয়েন্ট)

3 উত্তর

+2 টি পছন্দ
করেছেন (1,028 পয়েন্ট)
পূনঃপ্রদর্শিত করেছেন
যখন একজন মুসলমান শরীয়তসম্মত কোনো কারণ ছাড়া নামাজ পড়ে না অর্থাৎ নামাজ কাযা করে তখন যে শয়তানের ভাই হয়ে যায়।কিন্তু একজন মুসলমান যখন আল্লাহকে বিশ্বাস করে ও কুরআন,হাদিস মেনে চলে তখন শয়তান তার শত্রু হয়ে যায়।শয়তান তাকে সবসময় বিপদে ফেলার চেষ্টা করে।কিন্তু সে আল্লাহকে বিশ্বাস করে তার কাজ চালিয়ে যায়।
+1 টি পছন্দ
করেছেন (761 পয়েন্ট)
শয়তানের ভাই বিষয়ে কোরআনে এসেছে,

সূরা বনী ইসরাঈল:27 - নিশ্চয় অপব্যয়কারীরা শয়তানের ভাই। শয়তান স্বীয় পালনকর্তার প্রতি অতিশয় অকৃতজ্ঞ।
0 টি পছন্দ
করেছেন (231 পয়েন্ট)
যখন কোনো ব্যাক্তি শুধু শুধু অপচয় করে,তখন সে শয়তানের ভাই হয়ে যায়।কুরআনে আছে, ..নিশ্চয়ই অপচয়কারী শয়তানের ভাই.. ।আর নামাজ পডলে আল্লাহ খুশি হন।আর নামাজ না পডলে শয়তান খুশি হয়।সুতরাং যে ব্যাক্তি নামাজ পডে না,সে শয়তানের বন্ধু।আর যে ব্যাক্তি সর্বদা নামাজ পডে,জিকির করে,ইসলামী আইন কানুন মেনে চলে সে হলো আল্লাহর বন্ধু,আর শয়তানের শত্রু।রাসুল (স:)বলেন,মান তরকাস সলাতা মুতাআম্মিদান ফাকদ কাফার।অর্থাৎ যে ব্যাক্তি ইচ্ছাকৃতভাবে নামাজ ত্যাগ করলো,সে কুফরি করলো।
করেছেন (4,777 পয়েন্ট)
দয়া করে বানান সম্পাদনা করুন।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

2 টি উত্তর
11 জুন 2018 "ইসলাম" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Badshah Niazul (4,428 পয়েন্ট)
2 টি উত্তর
23 জানুয়ারি 2014 "ঈমান" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Rafia Begum (2,125 পয়েন্ট)
2 টি উত্তর
24 এপ্রিল 2018 "সাধারণ" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন মনোয়ার হোসেন বাদল (546 পয়েন্ট)

312,178 টি প্রশ্ন

401,767 টি উত্তর

123,431 টি মন্তব্য

173,015 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...