বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
2,506 জন দেখেছেন
"প্রেম-ভালোবাসা" বিভাগে করেছেন (112 পয়েন্ট)

2 উত্তর

+1 টি পছন্দ
করেছেন (677 পয়েন্ট)
নির্বাচিত করেছেন
 
সর্বোত্তম উত্তর
মা-বাবার সাথে সন্তানদের মানসিক দূরত্ব থাকলে অনেক সময় মা-বাবা বুঝতেই পারেন না তাদের সন্তানরা কী করে, কোথায় যায়, কাদের সাথে মেশে। বিশেষ করে কিশোরী মেয়েদের প্রতি আলাদা নজর দিতে হবে। কারন এই বয়সেই মেয়েরা ভুল করে বসে। তাই কিশোরি সন্তানের সাথে সময় কাটান, তার কথাগুলো শোনার চেষ্টা করুন বোঝার চেষ্টা করুন। তাকেও আপনাদের কথা বলুন, তার প্রতি আপনাদের ভালোবাসার যে কমতি নেই সেটা বলতে হবে তাকে। আর তার করনীয় সম্পর্কেও তাকে গাইড করতে হবে।

অল্প বয়সে এভাবে ঘর ছেড়ে চলে যাওয়ার ঘটনা আগেও ঘটত। কিন্তু এখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম, মোবাইল ফোন ইত্যাদির অত্যধিক ব্যবহার এসব ভুলে সহায়ক ভূমিকা পালন করছে। অপরিচিত কারো সাথে ঘণ্টার পর ঘণ্টা কথা বলা বা চ্যাট করা কিশোরি মেয়েদের আবেগি করে তুলছে। এ বিষয়ে মা-বাবার একটু নজরদারি করা উচিত। এ বিষয়ে খোলামেলা ভাবেই কথা বলা উচিত সন্তানের সাথে। কার সাথে কথা বলা যাবে আর কার সাথে যাবে না, কতক্ষণ সময় দেয়া যাবে ফেসবুকে, মোবাইল কখন বন্ধ করে ঘুমাতে হবে এসব নিয়ম করে দেয়া উচিত। তবে পুরোটাই হতে হবে সুন্দর বন্ধুত্বের ভিতর দিয়ে। কোনোরকম বকাঝকা ছাড়াই সন্তানকে বুঝিয়ে সুন্দরভাবে চলতে উপদেশ দিতে হবে।

মনঃচিকিৎসক মোহিত কামালের মতে, 'কিশোর বয়সে আবেগি প্রেমে জড়ানোর বিভিন্ন কারণের মধ্যে পরিবারের সদস্যদের ভালোবাসা না পাওয়াটা অন্যতম। এমন কিশোরীরা খুব সহজেই বিপরীত লিঙ্গের প্রতি আকৃষ্ট হয়ে যায়। চোখের নেশায় মুহুর্তেই ভুলে যায় সব কিছু। এ সময় মানসিক রোগাক্রান্তও হয়ে পড়তে পারে কেউ কেউ। পারিবারিক শিক্ষা, ভালোবাসা আর পরিমিত নিয়ন্ত্রণই পারে কিশোরীদের অল্প বয়সে প্রেম আর বিয়ের মতো সিরিয়াস বিষয় থেকে দূরে রাখতে। রাগ না করে বুঝিয়ে বলুন। অভিভাবক হয়েও বন্ধুর মতো খোলামেলা কথা বলুন তাদের সাথে।'
করেছেন (59 পয়েন্ট)
অনেক ভালো পরামর্শ, কাজে লাগবে।
ধন্যবাদ
করেছেন (328 পয়েন্ট)
আপনার এই উত্তর সত্যিই প্রশংসার দাবিদার
+1 টি পছন্দ
করেছেন (270 পয়েন্ট)
আসলে আপনি লক্ষ করুন বিগত কয়েক বছর আগে এই প্রবলেম টা তেমন ছিলো না । বিদেশি অপসাংস্কৃতি বাংলাদেশে প্রবেশ করার পর থেকে এখনকার কিশোরী মেয়েরা বেশি প্রভাবিত হচ্ছে। ভারতীয় সিরিয়াল বাংলাদেশে বন্ধ করতে পারলে এ সমস্যা অনেকটাই সমাধান হবে।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

6 টি উত্তর
আমি একটা মেয়েকে খুব ভালবাসি। অবশ্য এর আগেও একটা প্রেম করেছিলাম। কিন্তু বিয়ান হওয়ার কারনে relation আর আগাইনি। আমার আগের প্রেমের কথা মেয়েটাকে বলেছিলাম। এর আগে ফেচবুকে ওই মেয়ে আমাকে দুইটা ফেইক আইডি দিয়ে টেস্ট করেছে। আমি ব্যর্থ হয়েছিলাম। যাইহোক আমি সব ভুলে ওই মেয়েটা কে ভালবাশি। ১৫ দিন পর সে ব্রেক আপ করে। আমি খুব কস্ট পেয়েছিলাম। এর কিছুদিন পর ও নিজেই আবার ফিরে আসে।এরপর প্রায় ১ মাস পর ও কোনোরকম কারন ছারাই ব্রেক আপ করে। জিজ্ঞেস করলে বলে ওর ফ্যামিলি আমাকে মেনে নেবেনা। আবার অন্য কেউ জিজ্ঞেস করলে বলে আমি নাকি অনেক ইমোশনাল। ও আমার সাথে একিই ক্লাস এ পরে। আমি না পারছি ওরে ভুলতে না থাকতে। ও আমার সাথে আর কথা বলে না। তাছাড়া ওর সাথে যোগাযোগ করার কোনো উপাই নেই। এখন আমার কি করা উচিত? কি করলে ও আমাকে ভালবাসবে? কি করলে ও ইমোশনালি হিট হবে? প্লিজ বলেন?
12 মার্চ 2016 "প্রেম-ভালোবাসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Fahed Ahmed (14 পয়েন্ট)

313,042 টি প্রশ্ন

402,639 টি উত্তর

123,694 টি মন্তব্য

173,382 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...