বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
20 জন দেখেছেন
"ইসলাম" বিভাগে করেছেন (489 পয়েন্ট)
বিভাগ পূনঃনির্ধারিত করেছেন

1 উত্তর

+1 টি পছন্দ
করেছেন (6,445 পয়েন্ট)
ঘুম থেকে উঠেই মিসওয়াক করতে হবে, হোক সেটা দিনে কিংবা রাতে। কেননা, হাদীসে বর্ণিত আছেঃ “হযরত আয়িশাহ (রাঃ) হতে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবীকরিম (সঃ) রাতে বা দিনে যখনই ঘুম থেকে জাগতেন, উযুর পূর্বে মিসওয়াক করতেন।” — আহমাদ (৬/১৬০), (সুনানে আবু দাউদ, হাদিস নং ৫৭)

মিসওয়াকের মধ্যে ধর্মীয় ও দুনিয়াবী অসংখ্য ফজিলত রয়েছে এবং এটি একটি সুন্নাতও বটে (সওয়াব রয়েছে)। এতে বিভিন্ন রাসায়নিক অংশ রয়েছে, যা দাঁতকে সব ধরনের রোগ থেকে রক্ষা করে।

তাহতাবী শরীফের পাদটীকায় রয়েছেঃ

১) মিসওয়াক দ্বারা স্মরণশক্তি বৃদ্ধি পায়,
২) মাথা ব্যথা দূর হয় এবং মাথার রগগুলোতে প্রশান্তি আসে। 
৩) এতে শ্লেষ্মা (কফ, সর্দি) দূর, দৃষ্টি শক্তি তীক্ষ্ম, পাকস্থলী ঠিক এবং খাদ্য হজম হয়, বিবেক বৃদ্ধি পায়। 
৪) সন্তান প্রজননে বৃদ্ধি ঘটায়। 
৫) বার্ধক্য দেরীতে আসে এবং পিঠ মজবুত থাকে।” (হাশিয়াতুত তাহতাভী, আল মারাকিল ফালাহ, ৬৮ পৃষ্ঠা)
করেছেন (489 পয়েন্ট)
মিসওয়াক কেন করা হয় দুর্গন্ধ দূর করতে নাকি দাত পরিস্কার করতে?
করেছেন (6,445 পয়েন্ট)

@

মিসওয়াক যে শুধু দাঁত পরিষ্কার কিংবা দাঁতের দুর্গন্ধ দূর করার জন্য-ই ব্যবহৃত হয়, বিষয়টি এমন নয়৷ এটি একটি রাসূলের সুন্নাত। তাই বিভিন্ন ক্ষেত্রেই এটি ব্যবহার করা যেতে পারে৷

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

3 টি উত্তর
1 উত্তর
20 এপ্রিল "সালাত" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন alim dar (21 পয়েন্ট)
3 টি উত্তর
11 মে "সিয়াম" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন জেবু (81 পয়েন্ট)

343,138 টি প্রশ্ন

436,245 টি উত্তর

136,502 টি মন্তব্য

184,855 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...